ব্রেকিং নিউজ

পর্যটক বান্ধব আদর্শ রাঙামাটি শহর গড়ার লক্ষ্যে জেলা প্রশাসনের অভিযান চলছে

॥ আলমগীর মানিক ॥

পরিষ্কার পরিচ্ছন্ন, সু-শৃঙ্খল ও পর্যটক বান্ধব আদর্শ রাঙামাটি শহর গড়ার লক্ষ্যে জেলা প্রশাসনের উদ্যোগে ২য় দিনের মতো রাঙামাটি শহরে পরিচ্ছন্ন অভিযান ও ভ্রাম্যমান আদালত পরিচালনা করা হয়েছে। রাঙামাটি পৌরসভার সহায়তায় জেলা প্রশাসনের নির্বাহী ম্যাজিষ্ট্রেট সিরাজুল ইসলামের নেতৃত্বে রিজার্ভ বাজারে এই অভিযান পরিচালিত হয়।

অভিযানের সময় গাড়ি ও পথচারি চলাচলে রাস্তার দু’ধারে প্রতিবন্ধকতা সৃষ্টিকারি কয়েকজন ব্যবসায়িকে আর্থিক জরিমানার পাশাপাশি ব্যবসায়িদের দ্বারা দখলীয় ফুটপাত উদ্ধারে বেশ কিছু জিনিসপত্র পরিচ্ছন্নকর্মীদের দিয়ে জব্দ করে পৌরসভাকে দিয়ে দেয় ভ্রাম্যমান আদালত কর্তৃপক্ষ।

এছাড়াও ব্যবসায়িদের অনুরোধের প্রেক্ষিতে একদিনের মধ্যে রাস্তার উপর অবৈধভাবে গড়ে তোলা তরকারির দোকানগুলো অন্যত্র সরিয়ে নিতে একদিন সময় বেধে দেয় ভ্রাম্যমান আদালত। এসময় জেলা প্রশাসনের পেশকার মোঃ নজরুল ইসলাম, অফিস সহায়ক অয়ন বড়ুয়াসহ পুলিশ বাহিনীর সদস্যরা ভ্রাম্যমান আদালত পরিচালনায় সহযোগিতা করেন।

এসময় মোবাইল কোর্ট পরিচালনকারী রাঙামাটি জেলা প্রশাসনের নির্বাহী ম্যাজিষ্ট্রেট মোঃ সিরাজুল ইসলাম জানান, রাঙামাটির নাগরিকদের সুস্বাস্থ্য নিশ্চিতকরণসহ পরিষ্কার পরিচ্ছন্ন, সু-শৃঙ্খল ও পর্যটক বান্ধব আদর্শ রাঙামাটি শহর গড়ার লক্ষ্যে রাঙামাটি জেলা প্রশাসনের পক্ষ থেকে মাসব্যাপী পরিচ্ছন্ন অভিযান পরিচালনার সিদ্ধান্ত গৃহিত হয়েছে। সেই আলোকে জেলা প্রশাসক একেএম মামুনুর রশিদ স্যারের নির্দেশনায় তারই প্রত্যক্ষ নেতৃত্বে রোববার থেকে রাঙামাটি শহরে অভিযান পরিচালনা করা হচ্ছে। এরই ধারাবাহিকতায় আজ সোমবার রিজার্ভ বাজারে অভিযান পরিচালনা করছি।

ধারাবাহিকতাভাবে আগামী একমাস পর্যন্ত প্রতিদিনই শহরের অন্যান্য স্থানগুলোসহ পর্যায়ক্রমে মানিকছড়ি পর্যন্ত পুরো শহরে টানা একমাসব্যাপী এই অভিযান অব্যাহত রাখবে রাঙামাটি জেলা প্রশাসন কর্তৃপক্ষ। এসময় সুন্দর ও মনোরম পরিবেশে বাসযোগ্য একটি পরিচ্ছন্ন সু-শৃঙ্খল রাঙামাটি শহর গঠনে সকল স্তুরের জনসাধারনকে এগিয়ে এসে জেলা প্রশাসনের এই উদ্যোগকে সার্বিকভাবে সহযোগিতার আহবানও জানিয়েছেন রাঙামাটি জেলা প্রশাসনের নির্বাহী ম্যাজিষ্ট্রেট সিরাজুল ইসলাম।