রাঙামাটি’র আমানতবাগ দরবার শরীফে অনুষ্ঠিত হইবে ৬৩ তম পবিত্র খোশরোজ শরীফ

॥ মোঃ আবদুল নাঈম মোহন ॥

হুজুর কেব্লা হযরত ছৈয়দ মোঃ আমীর উদ্দিন শাহ্ ছাহেব (জামিরজুরী রবার শরীফ, চন্দনাইশ, চট্টগ্রাম)-এর ৬৩তম পবিত্র খোশরোজ শরীফ  ২৯ অক্টোবর ২০১৮খ্রিঃ রোজ সোমবার বিভিন্ন কর্মসূচির মধ্য দিয়ে রাঙামাটি কলেজ গেইট রবার ভিলা “আমানতবাগ দরবার শরীফ” প্রাঙ্গনে অনুষ্ঠিত হবে। পবিত্র খতমে কোরআন এর মধ্য দিয়ে পবিত্র খোশরোজ শরীফ অনুষ্ঠান শুরু হবে, বাে মাগরিব হইতে মিলাদ ও ছেমা মাহফিল, আখেরী মোনাজাত ও সর্বশেষ তাবারুক বিতরণের মাধ্যমে অনুষ্ঠান সম্পন্ন করা হবে। প্রতি বছর ঠিক এদিনে দেশের বিভিন্ন অঞ্চল থেকে হাজার-হাজার ভক্তগণ বিভিন্ন ধরণের হাদিয়া তোহফা নিয়ে মিলিত হয় নির্ধারিত এদিনে, আর তাতে ভক্তগণের মিলন মেলা সৃষ্ঠি হয়। ৬ অক্টোবর ২০১৮ খ্রিঃ রোজ শনিবার বিকাল ৪ঘটিকার সময় জামিরজুরী রবার শরীফ প্রাঙ্গনে ৬৩ তম পবিত্র খোশরোজ শরীফ যথাযত ভাবে সম্পন্ন করার লক্ষে খোশরোজ শরীফ উদ্যাপন পরিষরে উদ্যেগে গুরুত্বপূর্ণ আলোচনা ও প্রস্ততি সভা অনুষ্ঠিত হয়। খোশরোজ শরীফ উদ্যাপন পরিষদের সাধারণ সম্পাদক জনাব, মোঃ আদুল শুক্কুরের পরিচালনায়, আর এতে সভাপত্বি করেন উদ্যাপন পরিষদের সভাপতি ও খাদেম জনাব, মোঃ ইয়াকুব আলী। খোশরোজ শরীফ উদ্যাপন পরিষদের সাধারণ সম্পাদক জনাব, মোঃ আবদুল শুক্কুর জানান, হুজুর কেব্লার হযরত ছৈয়দ মোঃ আমীর উদ্দিন শাহ্ ছাহেব’র ৬৩তম পবিত্র খোশরোজ শরীফ সফল করার লক্ষে ৪১ সদস্য বিশিষ্ট একটি স্বেচ্ছাসেবক কমিটি গঠন করা হয়েছে, আর তাতে স্বেচ্ছাসেবক প্রধান হিসাবে দায়িত্ব পালন করবেন, রাঙামাটি পৌরসভার ৪নং ওয়ার্ড কাউন্সিলর জনাব, মোঃ মিজানুর রহমান (বাবু)। স্বেচ্ছাসেবক সস্যরা ২৯ অক্টোবর, অনুষ্ঠান শুরু থেকে শেষ পর্যন্ত বিভিন্ন স্থানে অবস্থান নিবেন। তিনি আরো জানান, পবিত্র খোশরোজ শরীফ উদ্যাপন পরিষদের উদ্যেগে রাঙামাটি’র প্রবেশ মূখ মানিকছড়ি থেকে শুরু করে শহরের বিভিন্ন পয়েন্টে ব্যানার-পেষ্টন, লিপলেট বিতরণ করা হবে, এছাড়াও রাঙামাটি সদরের লোকাল চ্যানালের মাধ্যমে সবাইকে পবিত্র খোশরোজ শরীফ মাহফিলের দাওয়াত প্রান করা হবে। আর এতে জাতি, ধর্ম, বর্ণ নির্বিশেষে সকলে অংশ গ্রহন করবে বলে আমরা মনে করি। আইন-শৃঙ্খলা বিষয়ে জানতে চাইলে তিনি জানান, বিগত বছর গুলোতে কোন প্রকার সমস্যা ছাড়াই সবার সহযোগিতায় পবিত্র খোশরোজ শরীফ সফল ভাবে পালন করে যাচ্ছি। তারপরও রাঙামাটি সদর উপজেলার নির্বাহী কর্মকতা ও রাঙামাটি কোতয়ালী থানায় অবিহিত করা হবে। পবিত্র খোশরোজ শরীফে আখেরী মোনাজাত পরিচালনা করবেন খোশরোজ শরীফ উদ্যাপন পরিষদের সভাপতি ও খাদেম মোঃ ইয়াকুব আলী।