২৮ অক্টোবর উদ্বোধন হচ্ছে বহুপ্রতীক্ষিত পার্বত্য চট্টগ্রাম কমপ্লেক্স!

॥ নুরুল কবির – বান্দরবান ॥

অবশেষে পার্বত্যবাসীর বহুদিনের প্রতীক্ষিত দাবি পূর্ণ হতে চলেছে। পার্বত্যবাসী পাচ্ছেন দেশের রাজধানী ঢাকারবুকে একখন্ড ভুমিতে আধুনিক শৈলী ও স্থাপত্যে নির্মিত দৃষ্টিনন্দন ‘পার্বত্য চট্টগ্রাম কমপ্লেক্স’ নামক একটি ঠিকানা। এই পার্বত্য কমপ্লেক্সের উদ্বোধন হতে যাচ্ছে ২৮ অক্টোবর। প্রধানমন্ত্রী শেখ হাসিনা এই কমপ্লেক্সের উদ্বোধন করবেন বলে আশা করা যাচ্ছে। এই লক্ষ্যে পার্বত্য চট্টগ্রাম বিষয়ক প্রতিমন্ত্রী বীর বাহাদুর উশৈসিং এমপি ঢাকার বেইলি রোডে সদ্য নির্মিত পার্বত্য কমপ্লেক্সের বিভিন্ন বিভাগ পরিদর্শন করেছেন। এ সময় তাঁর সাথে ছিলেন পার্বত্য মন্ত্রণালয়ের সচিব মো.নুরুল আমিন এবং উর্ধতন কর্মকর্তারা।

এ তথ্য জানিয়েছেন পার্বত্য প্রতিমন্ত্রীর সহকারী একান্ত সচিব (এপিএস) সাদেক হোসেন চৌধুরী এ তথ্য জানিয়েছেন। ওই পার্বত্য কমপ্লেক্সটি উদ্বোধনের পর পার্বত্যবাসী আরও একধাপ এগোবেন তাদেরই নিশ্চিত অধিকারের ক্ষেত্রে। পার্বত্য প্রতিমন্ত্রীর এপিএস সাদেক হোসেন চৌধুরী জানান, পাহাড়ের বান্দরবান, রাংগামাটি এবং খাগড়াছড়ি জেলাবাসীর দীর্ঘদিনের প্রতীক্ষা ও দাবি ছিল- রাজধানী ঢাকারবুকে একখন্ড জমিতে যেন একটি পার্বত্য ভবন বা কমপ্লেক্স পাওয়া যায়। কারণ পাহাড়ের জন প্রতিনিধি এবং নেতৃবৃন্দ ঢাকার বুকে তাদের দাপ্তরিক কার্যক্রম পরিচালনায় কোন ঠিকানা ছিল না। বর্তমান সরকারের জননন্দিত প্রধানমন্ত্রী শেখ হাসিনার উদ্যোগে এবং পার্বত্য প্রতিমন্ত্রী বীর বাহাদুরের প্রচেষ্টায় তারই প্রতিফলন ঘটেছে, করে দেয়া হয়েছে পাহাড়ের জন্যে একটি স্থায়ী ঠিকানা। অবশেষে প্রায় ২একর জমিতেই নির্মিত হল পার্বত্য চট্টগ্রাম কমপ্লেক্স।

এই কমপ্লেক্স এর উদ্বোধনী অনুষ্ঠানে মন্ত্রী পরিষদের সদস্যবর্গ ছাড়াও পাহাড়ের শীর্ষ নেতারা উপস্থিত থাকবেন বলেও সুত্র জানিয়েছে।