আসন্ন নির্বাচনে রাঙামাটিতে বিএনপির মনোনয়ন প্রত্যাশী দিলদার!

॥ নূর হোসেন মামুন-কাপ্তাই ॥
বাংলাদেশের সর্ববৃহৎ জেলা হচ্ছে রাঙামাটি পার্বত্য জেলা। সর্বশেষ তথ্যানুযায়ী জেলাটি বর্তমানে ৭লাখেরও অধিক জনসংখ্যার বসবাসকারী রয়েছে। ভোটার রয়েছে ৪লাখ ১৭হাজার ৩৫৮জন। যার মধ্যে পুরুষ ভোটারের সংখ্যা ২লাখ দুই হাজার ৯৯জন ও মহিলা ভোটার রয়েছেন ১লাখ ৯৭হাজার ২৬০জন।
মহান জাতীয় সংসদের রাঙামাটি ২৯৯নং অাসনটি বর্তমানে জনসংহতি সমিতি (জেএসএস) এর অায়ত্বে রয়েছে। তবে সমান তালে দাপটের সঙ্গেও মাঠে রয়েছে ক্ষমতাসীন দল অাওয়ামীলীগ। জেলাটিতে বিএনপি কার্যক্রম নেই বললেই চলে। তবে এবার অাওয়ামীলীগ ও অাঞ্চলিক সংগঠন জেএসএস এর সাথে প্রতিদ্বন্দ্বিতা করে অাসনটি পুনঃদ্ধার করতে চায় বিএনপি।
এদিকে, একাদশ জাতীয় সংসদ নির্বাচনে বিএনপি থেকে ‘ধানের শীষ’ প্রতীকে দলীয় মনোনয়ন প্রত্যাশী জেলা বিএনপির যুগ্ম সম্পাদক ও কাপ্তাইয়ের সাহসী উপজেলা চেয়ারম্যান মো. দিলদার হোসেন চাচ্ছেন অাসনটি পুনঃদ্ধার করে বিএনপিকে উপহার দিতে।
জনপ্রতিয়তা ও স্থানীয় জনসাধারণের নিকট গ্রহণযোগ্যতায় তুঙ্গে থাকা কাপ্তাই উপজেলা চেয়ারম্যান মো. দিলদার হোসেন রাজনৈতিক ব্যক্তিত্ব ও সুখে-দুঃখে মানুষের পাশে থেকে ভালোবাসার ও অাস্থা অর্জন করে সর্বমহলের নিকট সুনাম কুড়িয়েছেন। উপজেলা ভাইস চেয়ারম্যান হিসেবে নির্বাচিত হয়ে মানুষের পাশে থেকে কাজ করে জনগণের ভালোবাসা অর্জন করে পরবর্তীতে অাবার উপজেলা চেয়ারম্যান হিসেবে নির্বাচিত হয়েছেন তিনি। তাই বর্তমানে একাদশ জাতীয় সংসদ নির্বাচনে এমপি হিসেবে তাকে দেখতে চায় স্থানীয় বিএনপি সহ অঙ্গ সংগঠনের নেতাকর্মী ছাড়াও সাধারণ জনসাধারণ।
উপজেলা চেয়ারম্যান মো. দিলদার হোসেন বলেন, অাগামীকাল মঙ্গলবার দলের নয়া পল্টনের কেন্দ্রীয় কার্যালয় থেকে সমর্থকদের নিয়ে মনোনয়ন পত্র সংগ্রহ করতে যাবো। জনগণ চায় অামি রাঙামাটি সংসদীয় অাসনটি পুনঃদ্ধার করে বিএনপিকে উপহার দেই। এখন নেত্রী যদি অামাকে মনোনয়ন দেয় তাহলে অাশা করি অামি অন্যদলের প্রার্থীদের সঙ্গে প্রতিদ্বন্দ্বিতা করে সংসদীয় এই অাসনটিকে বিএনপিকে উপহার দিতে সক্ষম হবো। অামার সাথে রয়েছে দল, শ্রেণী, বর্ণ নির্বিশেষে সকল মহলের অনুপ্রেরণা ও জনসমর্থন। তারা যেভাবে অামাকে ভালোবেসে অাসছে তা কখনো ভুলার নয়। অামিও তাদের অামার দেওয়া অাশ্বাস পূরণ করতে সক্ষম হবো বলে অাশা রাখি। এখন সবটাই নির্ভর করছে দলীয় মনোনয়েন উপর।