আমাদের কাছে পাহাড়ী বাঙ্গালী সবাই সমানঃ লে. কর্ণেল গোলাম আজম

॥ মো: ওমর ফারুক সুমন – বাঘাইছড়ি ॥

বাঘাইছড়ি উপজেলার  বাঘাইহাট বনানী বনবিহারে বৌদ্ধ ধর্মালম্বীদের পবিত্র দানোত্তম কঠিন চীবর দান অনুষ্ঠিত হয়েছে।  সাজেক ইউনিয়ন পরিষদ চেয়ারম্যান নেলসন চাকমার সভাপতিত্বে প্রধান অতিথী হিসেবে উপস্থিত ছিলেন ১২ বীর বাঘাইহাট জোনের জোন কমান্ডার লে:কর্ণেল গোলাম আজম (এস,বিপি পিএসসি)।

এক সংক্ষিপ্ত  বক্তব্যে জোন কমান্ডার লে:কর্ণেল গোলাম আজম (এসবিপি, পিএসসি) বলেন, আমরা চাই পাহাড়ে সবার শান্তিপূর্ণ সহঅস্থান, আমরা যারা নিরাপত্তা বাহিনীর সদস্য আছি আমরা আপনাদের সকলের নিরাপত্তার জন্য আছি, আমাদের কাছে পাহাড়ী বাঙ্গালী সবাই সমান, এখানে কোন প্রকার ভীতি যাহাতে কাজ না করে, এলাকার সকল সম্প্রদায় যেন সুন্দরভাবে আশীর্বাদ করতে পারে, সম্মানের সহিত সুন্দর ভাবে যাহাতে যে যার ধর্ম পালন করতে পারে, কোন সন্ত্রাসী যেন আমাদের সম্পর্ক নষ্ট করতে না পারে। সন্ত্রাসী কোন গোষ্ঠি যাহাতে এলাকার শান্তি শৃংখলা নষ্ট করতে না পারে সেদিকে সজাগ থাকতে হবে।

বিশেষ অতিথি হিসেবে উপস্থিত ছিলেন উপজেলা মহিলা ভাইস চেয়ারম্যান সুমিতা চাকমা, বঙ্গলতলী ইউনিয়ন পরিষদ চেয়ারম্যান জ্ঞান জ্যোতি চাকমা এবং সাজেক ইউনিয়নের হেডম্যান কার্বারী গণ।

১৫ নভেম্বর সকাল ১০ ঘটিকায় বাঘাইহাট বনানী বনবিহার  প্রাঙ্গণে এই ধর্মীয় অনুষ্টান পালিত হয়। এতে প্রধান ধর্মীয় গুরু উপস্থিত সকলকে ধর্মীয় দেশনা প্রদান করেন। এসময় বিভিন্ন বিহার থেকে আগত প্রায় অর্ধশত ভান্তে ধর্মীয় গুরু এবং দুই শতাধিক পূর্ণার্থী উপস্থিত ছিলেন।

বাগাইহাট জোনের জোন কমান্ডার এবং অনুষ্টানের প্রধান অতিথী লে:কর্ণেল গোলাম আজম(এসবিপি ‘ পিএসসি) অনুষ্ঠান স্থলে পৌছালে সাজেক ইউপি চেয়ারম্যান নেলসন চাকমা  ও স্থানীয় জনপ্রতিনিধিরা জোন কমান্ডারকে স্বাগত জানান এবং ফুলের তোড়া দিয়ে বরণ করে নেয়।  পরে  অতিথিদের নিয়ে জোন কমান্ডার অনুষ্ঠানস্থলে প্রবেশ করেন এবং প্রধান ধর্মীয়গুরুর হাতে ফলের ঝুড়ি উপহার হিসেবে তুলে  দেন।