ব্রেকিং নিউজ

পাহাড়ের ৪ হাজার পাড়া কেন্দ্রে আধুনিক তথ্য-প্রযুক্তি নির্ভর সেবা নিশ্চিতের উদ্যোগ

॥ নিজস্ব প্রতিবেদক ॥

পার্বত্য চট্টগ্রামের নারী ও শিশুদের শিক্ষা, স্বাস্থ্য ও পুষ্টিসহ সামাজিক সেবা নিশ্চিত করার লক্ষ্যে পার্বত্যাঞ্চলের ৪ হাজার পাড়াকেন্দ্রকে ডিজিটালাইজড করবে সরকার। বুধবার পার্বত্য চট্টগ্রামবিষয়ক মন্ত্রণালয়ের সম্মেলন কক্ষে ‘পার্বত্য চট্টগ্রামে ডিজিটাল সেবার প্ল্যাটফর্ম ও মডেল ডিজিটাল পাড়াকেন্দ্র স্থাপন’ শীর্ষক এক আন্তঃমন্ত্রণালয় সভায় এ সিদ্ধান্ত নেয়া হয়। সভায় জানানো হয়, প্রাথমিক পর্যায়ে তিন পার্বত্য জেলার ২৬টি পাড়াকেন্দ্রকে আধুনিক তথ্য প্রযুক্তি নির্ভর করে ডিজিটালাইজড এর মাধ্যমে এই কর্মকান্ডের সূচনা করা হবে বলে সিদ্ধান্ত গ্রহণ করা হয়েছে।

পার্বত্য মন্ত্রণালয়ের মন্ত্রী বীর বাহাদুর উশৈসিং এমপি’র সভাপতিত্বে উক্ত সভায় ডাক, টেলিযোগাযোগ ও তথ্য প্রযুক্তি বিষয়ক মন্ত্রী মোস্তাফা জব্বার, তথ্য ও যোগাযোগ প্রযুক্তি বিভাগের সচিব এন এম জিয়াউল আলম, পার্বত্য চট্টগ্রামবিষয়ক মন্ত্রণালয়ের ভারপ্রাপ্ত সচিব মো. মেসবাহুল ইসলাম, রাঙামাটি পার্বত্য জেলা পরিষদের চেয়ারম্যান বৃষ কেতু চাকমা, খাগড়াছড়ি পার্বত্য জেলা পরিষদের চেয়ারম্যান কংজরী চৌধুরী, মন্ত্রণালয়ের ঊর্ধ্বতন কর্মকর্তা, পার্বত্য চট্টগ্রাম উন্নয়ন বোর্ড এবং অ্যাক্সেস টু ইনফরমেশন (এটুআই) প্রকল্পের সংশ্লিষ্ট কর্মকর্তাগণ উক্ত সভায় উপস্থিত ছিলেন।

সভায় পার্বত্য মন্ত্রী বলেন, ‘পার্বত্যবাসীর সামাজিক সেবা প্রাপ্তির কেন্দ্রবিন্দু হিসেবে পাড়াকেন্দ্রগুলো অগ্রণী ভূমিকা পালন করছে। পাহাড়ি অঞ্চলে বিদ্যমান ৪ হাজার পাড়াকেন্দ্রের পাশাপাশি আরও এক হাজার নতুন পাড়াকেন্দ্র নির্মাণ করা হবে।’

উক্ত সভায় তথ্য প্রযুক্তি মন্ত্রী মোস্তাফা জব্বার বলেন, ‘পার্বত্য চট্টগ্রামে আধুনিক তথ্যপ্রযুক্তি সেবা প্রদানে পাড়াকেন্দ্রগুলো ডিজিটালাইজড করা হবে। এর ফলে এ অঞ্চলের শিশুরা প্রাক-প্রাথমিক স্তরেই আধুনিক তথ্য প্রযুক্তির সঙ্গে পরিচিত হয়ে তাদের মাতৃভাষাসহ সামাজিক সেবা সমন্বিতভাবে গ্রহণ করতে পারবে।’

দ্রুতগতির ইন্টারনেট সেবা দূর্গম এলাকায় পৌঁছাতে সরকার আন্তরিকভাবে কাজ করছে মন্তব্য করে মন্ত্রী আরও বলেন, ‘ডিজিটাল পার্বত্য চট্টগ্রাম বিনির্মাণে পাড়া কেন্দ্রগুলো জোরালো ভূমিকা পালন করবে এবং ভিশন-২০২১ বাস্তবায়ন তরান্বিত করতে অবদান রাখবে।’