ব্রেকিং নিউজ

লংগদুতে যাত্রীবাহী স্পীডবোটে হামলায় আহত-২ঃআইনী সহায়তা না পেয়ে সংবাদ সম্মেলন!

॥ নিজস্ব প্রতিবেদক ॥

কাপ্তাই হ্রদে দ্রুততম সময়ে চলাচলকারী যাত্রীবাহী যান স্পীড বোট চালককে অন্যায়ভাবে মারধর পরবর্তী থানা পুলিশের আইনি সহযোগিতা না পেয়ে সংবাদ সম্মেলনের মাধ্যমে হামলাকারীদের গ্রেফতারের দাবি জানিয়েছে রাঙামাটি স্পীড বোট মালিক সমবায় সমিতির নেতৃবৃন্দ। শনিবার সন্ধ্যায় সংগঠনের অস্থায়ী কার্যালয়ে আয়োজিত সংবাদ সম্মেলনে লিখিত বক্তব্য পাঠ করে ঘটনার বিবরণ জানান, সংগঠনটির সভাপতি জয়ন্ত লাল চাকমা।

এসময় সংগঠনের সহ-সভাপতি সুপম দেওয়ান, সাধারণ সম্পাদক পিটম চাকমা, রাঙামাটি লঞ্চ মালিক সমিতির প্রতিনিধি গিয়াস উদ্দিন আদরসহ অন্যান্য নেতৃবৃন্দ উপস্থিত ছিলেন। সংবাদ সম্মেলনে জানানো হয়, শনিবার ২রা মার্চ সকালে পৃথক সময়ে আমাদের সমিতিভুক্ত দুজন সদস্য লাইনম্যান দিলীপ কুমার দাশ (৪৯) ও বোট চালক সুনীল চাকমার উপর সন্ত্রাসী হামলা করা হয়। এ হামলার নেতৃত্ব দেয় স্থানীয় স্পীড বোট চালক মো. জামাল। এ সময় তার সহযোগী হয়ে হামলায় সহযোগীতা করে মো. সিদ্দিক, রুবেল, তোফাজ্জল, জামাল, শুক্কুর, তৈয়ফসহ আরো ৬/৭ জন।

সংবাদ সম্মেলনে সাংবাদিকদের প্রশ্নের জবাবে স্পীড বোট মালিক সমিতির নেতৃবৃন্দ অভিযোগ করেন, আমরা ঘটনার পরপরই লংগদু থানায় গিয়ে ওসিকে ঘটনার বিবরণ দিয়ে আইনী সহযোগিতা কামনা করা হলেও তিনি বিষয়টি মীমাংসার জন্যে স্থানীয় সরকারদলীয় নেতা বাবুর কাছে যাওয়ার পরামর্শ প্রদান করে কোনো ব্যবস্থা নেননি। এতে আমরা অত্যন্ত হতাশ ও মর্মাহত হয়েছি। এ ঘটনায় আমরা তীব্র নিন্দা ও দোষীদের গ্রেফতার করে আইনের আওতায় এনে দৃষ্টান্তমূলক শাস্তির দাবী জানাচ্ছি।

সংবাদ সম্মেলনে আরো জানান, দীর্ঘদিন যাবৎ আমাদের রাঙামাটি স্পীড বোট মালিক সমবায় সমিতি লিঃ এর বোট চালকদের নানাভাবে হয়রানি ও সমস্যা সৃষ্টি করার চেষ্টা করে। লংগদু থেকে রাঙামাটির উদ্দেশ্য করে কোনো যাত্রী উঠা-নামা করলে উপরে উল্লেখিত ব্যক্তিরা প্রাণে মারার হুমকি দেয়। এতে করে যাত্রীসহ সর্ব সাধারণের মধ্যে আতঙ্ক বিরাজ করছে মন্তব্য করে এমন পরিস্থিতিতে প্রশাসনের সহযোগীতা কামনাসহ হামলাকারীদের দ্রুত গ্রেফতার করে তাদের আইনের আওতায় আনার দাবী জানিয়েছে রাঙামাটি স্পীড বোট মালিক সমবায় সমিতির নেতৃবৃন্দ।