ব্রেকিং নিউজ

বান্দরবানে তিন কোটি টাকা ব্যয়ে তিনটি উন্নয়ন কাজের ভিত্তিপ্রস্তর স্থাপন

॥ নুরুল কবির – বান্দরবান ॥

বান্দরবানের রোয়াংছড়িতে স্থানীয় সরকার প্রকৌশল অধিদপ্তর (এলজিইডি) ও পাবত্য চট্রগ্রাম উন্নয়ন বোর্ডের প্রায় তিন কোটি টাকার ব্যয়ে তিনটি উন্নয়ন কাজের ভিত্তিপ্রস্তর স্থাপন করা হয়। শুত্রুবার সকালে এসব প্রকল্পের ভিত্তিপ্রস্তর স্থাপন করেন পার্বত্য চট্টগ্রাম বিষয়ক মন্ত্রণালয়ের মন্ত্রী বীর বাহাদুর উশৈসিং এমপি । এছাড়া কারিতাসের উদ্যোগে রোয়াংছড়ি উপজেলায় পাহাড় ধস ও বন্যায় ক্ষতিগ্রস্ত ৭০০পরিবারদের মাঝে নগদ অর্থ ও সদর ইউনিয়ন পরিষদের উদ্যোগে ত্রাণ সামগ্রী বিতরণ করেছেন।

এসময় উপস্থিত ছিলেন বান্দরবানের অতিরিক্ত জেলা প্রশাসক মো: শফিউল আলম,অতিরিক্ত পুলিশ সুপার মো:কামরুুজ্জামান, পার্বত্য জেলা পরিষদের ভারপ্রাপ্ত চেয়ারম্যান কা নজয় তংচ ্যা,এলজিইডি জিল্লাুর রহমান,সিভিল সার্জন ডাঃ অং সুই প্রু,পাবত্য আ ালিক পরিষদ সদস্য কাজল কান্তি দাশ, পাবত্য চট্রগ্রাম উন্নয়ন বোর্ড বান্দরবান প্রকল্প পরিচালক আবদুল আজিজ,নিবাহী প্রকৌশলী ইয়াছির আরাফাতসহ প্রশাসনের উর্ধতন কর্মকর্তা ও গণ্যমান্য ব্যক্তিবর্গরা।

জানা যায়,পার্বত্য চট্টগ্রাম বিষয়ক মন্ত্রণালয়ের মন্ত্রী বীর বাহাদুর উশৈসিং এমপি সকালে রোয়াংছড়ি সদর ইউনিয়ন পরিষদ কার্যালয়ে পার্বত্য চট্টগ্রাম বিষয়ক মন্ত্রণালয় থেকে পাহাড় ধস ও বন্যায় ক্ষতিগ্রস্ত ৩শত ৩৩ পরিবারকে ১৫কেজি চাল বিতরণ করেন। এরপর বেসরকারি উন্নয়ন সংস্থা কারিতাসের উদ্যোগে সাম্প্রতিক বন্যায় ক্ষতিগ্রস্তদের মাঝে মানবিক সাড়াদান কর্মসূচি’র আওতায় প্রত্যেক পরিবারের মাঝে ৫৫০০ টাকার হারে ৭০০ পরিবারের মাঝে অর্থ সহায়তা প্রদান করেন ।
এর আগে পিাবত্য মন্ত্রী স্থানীয় সরকার প্রকৌশল অধিদপ্তর (এলজিইডি) কর্তৃক ২টি উন্নয়ন প্রকল্পের আড়াই কোটি টাকা ব্যয়ে বন্যা ও দূর্যোগে ক্ষতিগ্রস্ত পল্লী সড়ক অবকাঠামো পূর্ণবাসন প্রকল্পের আওতায় রোয়াংছড়ি হতে বাঘমারা জিসি ভায়া লিরাগাওঁ রাস্তা ও উপজেলা সদরে মুক্তিযোদ্ধা স্মৃতি জাদুঘর নির্মাণ প্রকল্পের এবং পাবত্য চট্রগ্রাম উন্নয়ন বোর্ডের ৩০ লাখ টাকার ব্যয়ে অফিসাস ক্লাবের ভিত্তিপ্রস্তর স্থাপন করেন।

প্রধান অতিথির বক্তব্যে পাবত্যমন্ত্রী বীর বাহাদুর এমপি বলেছেন, পার্বত্য চট্টগ্রামের মানুষের আর্থ-সামাজিক উন্নয়নে বর্তমান সরকার খুবই আন্তরিক। প্রত্যন্ত অ লে ব্রীজ রাস্তা ঘাট মসজিদ মন্দির শিক্ষা প্রতিষ্ঠান যেখানে যা প্রয়োজন হচ্ছে সবই শেখ হাসিনা সরকার করে দিচ্ছে। পার্বত্য অ লের মানুষ এখন আর পিছিয়ে নেই। সারা দেশের সাথে তাল মিলিয়ে এখানকার ছেলে মেয়েরাও এগিয়ে যাচ্ছে। উন্নয়নের এ ধারা অব্যাহত রাখতে সরকার নিরলসভাবে কাজ করে যাচ্ছে।