অন্যায়ভাবে অনুপ্রবেশের দায় স্বীকার করে বান্দরবানে ৪ বিজিপিকে ফেরত পেল মিয়ানমার

প্রতীকী ছবি

॥ বান্দরবান প্রতিনিধি ॥

কক্সবাজার টেকনাফের নাজির পাড়া নাফনদী পয়েন্ট থেকে অনুপ্রবেশের দায়ে আটক চার বিজিপি সদস্যকে হস্তান্তর করা হয়েছে। নিজেদের সদস্যরা অন্যায়ভাবে অনুপ্রবেশ করেছে বলে স্বীকার করে তাদের ফিরিয়ে নেয় মিয়ানমার।

বুধবার (৪ সেপ্টেম্বর) দুপুর আড়াইটার দিকে বান্দরবানের নাইক্ষ্যংছড়ির ঘুমধুমের বাংলাদেশ-মিয়ানমার মৈত্রী সেতু দিয়ে পতাকা বৈঠকের মাধ্যমে তাদের হস্তান্তর করে বিজিবি। এর আগে, দুপুর ১২ টা থেকে পতাকা বৈঠক অনুষ্ঠিত হয়। বৈঠকে বাংলাদেশের পক্ষে ১২ সদস্য ও মিয়ানমারের পক্ষে ১০ সদস্যের প্রতিনিধি উপস্থিত ছিলেন। বাংলাদেশের পক্ষে নেতৃত্ব দেন কক্সবাজার ৩৪ বিজিবির অধিনায়ক লে. কর্ণেল আলী হায়দার আজাদ আহমেদ, টেকনাফস্থ ২ বিজিবির অধিনায়ক লে. কর্ণেল ফয়সাল হাসান খান। মিয়ানমারের নেতৃত্ব দেন বিজিপির ১ নং ব্যাটেলিয়ানের অধিনায়ক কমান্ডিং অফিসার ক্য উইন।

হস্তান্তরকৃতরা হলেন, মিয়ানমারের রাখাইন রাজ্যের মংডুর নাগকুড়া ব্যাটালিয়ানের মেগচিং ক্যাম্পের ক্যাপ্টেন লি উইন কো মং (৩০), সার্জেন্ট ইয়ানাং তুন (৩১), সার্জেন্ট প্যায়াং গি (২৫) ও সিপাহী ক্য ক্য (২৮)।

উল্লেখ্য যে, (২৫ আগস্ট) রোববার রাতে টেকনাফ সদর ইউনিয়নের নাজিরপাড়া নাফ নদী পয়েন্ট থেকে এ চার সদস্যকে আটক করে বিজিবি। বাংলাদেশে অনুপ্রবেশের দায়ে তাদের আটক করা হয়। পরে জিজ্ঞাসাবাদে তারা বিজিপি সদস্য বলে স্বীকার করে। এসময় তাদের ব্যবহৃত একটি স্পিড বোট, অস্ত্র ও গোলাবারুদ পাওয়া যায়।