কলেজ গেইটে ভূমি বিরোধ নিয়ে দেওয়ান ও দেওয়ানের মেয়ের জামাইয়ের মধ্যে উত্তেজনা!

॥ নিজস্ব প্রতিবেদক ॥

রাঙামাটি শহরের কলেজ গেট এলাকায় ভুমি বিরোধ নিয়ে উত্তেজনা দেখা দিয়েছে। পুলিশ ঘটনাস্থলে উপস্থিত হওয়ায় অপ্রীতিকর কোন পরিবেশ সৃষ্টি হতে পারেনি জানিয়েছেন স্থানীয়রা। শুক্রবার সকাল ১১ টায় কলেজ গেট পাহাড়িকা বাস কাউন্টারের পাশে একটি কাঠের দোকান নির্মাণকে কেন্দ্র করে এ উত্তেজনা দেখা দেয়। একপক্ষ কাজ করতে গেলে অপর পক্ষ গিয়ে বাধা দেয়।

স্থানীয়রা জানান, পাহাড়িকা বাস কাউন্টার এলাকার আশাপাশে ৫৪ শতক জমির মালিকানা দাবী করে সাবেক যুগ্ম জজ ও বিএনপি কেন্দ্রীয় কমিটির সহ ধর্ম বিষয়ক সম্পাদক এডভোকেট দীপেন দেওয়ানের ভাতিজা চন্দ্রজিত দেওয়ান ও প্রয়াত ডাক্তার একে দেওয়ানের মেয়ের জামাই অব সেনা কর্মকর্তা মো. আবু ইসহাক ইব্রাহিম। বর্তমানে জায়গাটি দীপেন দেওয়ানদের দখলে আছে।

শুক্রবার সকালে একজন ফল বিক্রেতা সেখানে একটি দোকান নির্মাণ করে জায়গাটি বেদখলের কাজ শুরু করে। এ খবর পেয়ে দীপেন দেওয়ানের ভাতিজা চন্দ্রজিত দেওয়ান বাধা দেয়। এ নিয়ে উত্তেজনা দেখা দেয়। ঘটনাস্থলে এ্যাডভোকেট দীপেন দেওয়ান বলেন, এ বিরোধ নিয়ে একটি মামলা আদালতে বিচারাধীন আছে। আদালত যে রায় দেবে সেটি আমরা মেনে নিব। কিন্তু একে দেওয়ানের জামাই আইন অমান্য করে লোক লাগিয়ে দিয়ে জোর করে বেদখল করতে এসেছে। এ বিষয়টি আমরা পুলিশকে জানিয়েছি।

ঘটনাস্থলে উপস্থিত ডা. একে দেওয়ানের আত্মীয় দাবী করা এক যুবক নাম প্রকাশ না করে বলেন, ২০১৫ সালে আদালত আমাদের পক্ষে রায় দিয়েছে। তাই আমরা কাজ করছি। এখন যেহেতু কাজ বন্ধ করে দেওয়া হয়েছে আমরা কাজ করব না।
ঘটনাস্থলে উপস্থিত রাঙামাটি কোতয়ালী থানার এস আই সাগর বলেন, কোন উত্তেজনা হয়নি। উভয় পক্ষকে আইন মেনে শান্ত থাকতে অনুরোধ করেছি।