পাল্টে যাচ্ছে হাটহাজারী পৌরসভার সড়ক যোগাযোগ ব্যবস্থা

॥ হাটহাজারী প্রতিনিধি ॥

হাটহাজারী পৌর এলাকার বিভিন্ন ওয়ার্ডে নতুন নতুন রাস্তা নির্মাণের উদ্যোগ নিয়েছেন পৌর প্রশাসক রুহুল আমিন। পৌর সদরের কয়েকটি ওয়ার্ড পরিদর্শন করতে গিয়ে তিনি সরকারী খাস খতিয়ানভুক্ত সরকারী জায়গা ও আর এস ও বিএস সীট এর জায়গায় রাস্তা থাকলেও সে সব রাস্তায় বসতী স্থাপনা,দোকানপাট ও সীমানা দেয়াল নির্মাণ করেন কিছু সুবিধাবাদী ব্যাক্তিরা। পৌর সদরের গুরুত্বপুর্ণ স্থানে অনেকেই অবৈধ ভাবে দখল নিয়ে সে সব জায়গায় ঘরবাড়ি, দোকানপাট নির্মাণ করে তা ভাড়া দিয়ে আর্থিক ভাবে লাভবান হচ্ছেন। কিন্তু এ সব জায়গা গুলো সরকারী হলেও জনগনের স্বার্থে ব্যবহার নেই। যেমন সরকারী ১ নং খাস খতিয়ানভুক্ত জায়গাতে সরকারী একটি হাসপাতাল,প্রশিক্ষণ কেন্দ্র,শিক্ষা প্রতিষ্টান,সরকারী সেবা মুলক যে কোন প্রতিষ্টান নিমার্ণ করা হলে সে সব প্রতিষ্টান গুলোতে এলাকার জনগন সুবিধা ভোগ করতে পারবেন। কিন্ত সরেজমিনে দেখা যায়, হাটহাজারী পৌরসভার ৯টি ওয়ার্ডে সরকারী খাসভুক্ত জায়গা বেশিভাগ সুবিধাবাদীদের দখলে। বিএস সীটে একটি রাস্তায় থাকলেও সে রাস্তাটি দখল করে বসতঘর নির্মাণ করেন কিছু অসাধু ব্যাক্তি। বিষয়টি জনগণ জানতে পারলেও এলাকার ওই সব দখলকারীদের প্রভাবে কিছু করতে পারে না।

এ দিকে পৌরসভার ফটিকা পশুহাসপাতাল সড়ক দিয়ে জনগনের সুবিধার্থে আরো একটি নতুন রাস্তা নির্মাণের উদ্যোগ নিয়েছেন তিনি। সড়কটি নির্মাণ করা হলে এলাকাবাসীদের যাতায়াতের ক্ষেত্রে সুবিধা হবে।মঙ্গলবার(১ অক্টোবর) ফটিকা পশু হাসপাতালের সড়ক নির্মানাধীন নতুন ড্রেনেজ ও সড়কের কাজ পরিদর্শন কালে তিনি পশুহাসপাতাল সড়ক সংযোগ আরো একটি নতুন রাস্তা নির্মাণের জন্য জায়গাটি পরিদর্শণ করেন।

এই নতুন রাস্তাটি নির্মাণ করা হবে পশু হাসপাতাল সড়কের মাঝ দিয়ে পশ্চিমে যাওয়ার পথে সরকারী খাস খতিয়ানভুক্ত প্রায় ১০ শতাংশ জায়গা প্রায় ১৯ আর ১৪ ফুট প্রশস্ত পরিত্যাক্ত জায়গা গুলো দিয়ে গালর্স স্কুর এন্ড কলেজ সড়কের সাথে সংযোগ করা হবে। দ্রুত রাস্তাটি নির্মাণের জন্য হাটহাজারী পৌর প্রকৌশলী বেলাল আহমেদ খানকে নির্দেশ দিয়েছেন। প্রাথমিক ভাবে গালর্স স্কুল এন্ড কলেজ সড়ক পর্যন্ত মাটি দিয়ে ভরাট করার নির্দেশ দেন। পৌর প্রশাসক রুহুল আমিন সড়কটি পরিদর্শন কালে কথা হলে তিনি এ প্রতিবেদককে জানান, সরকারী জায়গা কেহ দালালকোটা নির্মাণ করতে পারবেন না এ বিষয় গুলো মাতায় রেখে পৌরসভার প্রতিটি ওয়ার্ডে ঘরবাড়ি করার সময় পৌর কতর্তৃপক্ষ থেকে নকশা নিয়ে ঘর নির্মাণ করতে বলেন। ফটিকা পশু হাসপাতাল সংযোগ এই নতুন এই সড়কটি নির্মাণ করা হলে কামালপাড়া জনগণ নতুন সড়ক দিয়ে যাতায়াতে অনেকটা সুবিধা হবে। তিনি পৌর এলাকার প্রতিটি ওয়ার্ডে নতুন নতুন রাস্তা হবে এ ব্যাপারে সবার সহযোগিতা কামনা করেন। পৌরসভার নতুন সড়ক নির্মাণের উদ্যোগকে সাধুবাদ জানান এলাকাবাসী।