রাষ্ট্রীয় মর্যাদায় চিরশায়িত হলেন বীর মুক্তিযোদ্ধা দোস্ত মোহাম্মদ

॥ খাগড়াছড়ি প্রতিনিধি ॥

হাজারো মানুষের শ্রদ্ধা,ভালোবাসা আর রাষ্ট্রীয় মর্যাদায় খাগড়াছড়িতে নিহত বীর মুক্তিযোদ্ধা দোস্ত মোহাম্মদ চৌধুরীর যানাজা ও দাফন শেষ হয়েছে। শুক্রবার বাদ আসর খাগড়াছড়ি শহরের কেন্দ্রীয় ঈদগাহ মাঠে রাষ্ট্রীয় জানাজা শেষে তাকে পারিবারিক কবরস্থানে দাপন করা হয়েছে।

এতে খাগড়াছড়ি পুলিশ সুপার মোহা. আহমার উজ্জামান,পৌরসভার মেয়র রফিকুল আলম,সাবেক মুক্তিযোদ্ধা কমান্ডার রইস উদ্দিন,খাগড়াছড়ি উপজেলা নির্বাহী অফিসার শামসুন নাহার,রিজিয়নের প্রতিনিধি,সামাজিক-রাজনৈতিক নেতৃবৃন্দসহ সর্বস্থরের মানুষ অংশ নেয়। পরে জানাজা শেষে বিকেলেই খাগড়াছড়ির পারিবারীক কবরস্থানে তাকে দাফন করা হয়।

তিনি শুক্রবার ভোর রাত সাড়ে ৩ টায় জেলা সদরের মধুপুরস্থ নিজ বাসভবনে তিনি শেষ নিঃশ্বাস ত্যাগ করেন। ৮০ বছর মৃত্যুকালে এ বীর মুক্তিযোদ্ধা সহধর্মিণীসহ ৪ ছেলে, ২ মেয়েসহ অসংখ্য গুনগাহী রেখে গেছেন। তিনি তৎকালীন রামগড় সাব-ডিভিশন কমান্ডার ও মহকুমা প্রশাসকের বাংলোয় আনুষ্ঠানিকভাবে স্বাধীন বাংলাদেশের পতাকা উত্তোলন ছিলেন।

এছাড়াও তিনি ১৯৭১ সালের ৭ ডিসেম্বর থেকে একাধারে মহকুমা ও জেলা আওয়ামীলীগের ২২ বছর সাবেক সভাপতি এবং জেলা আওয়ামীলীগের উপদেষ্ঠা ও বাংলাদেশ আওয়ামীলীগের জাতীয় কমিটির সদস্য ছিলেন।