রাঙামাটিতে সচেতনতা বৃদ্ধিতে নতুন সড়ক আইনে মোবাইল কোর্ট পরিচালনা

॥ শহিদুল ইসলাম হৃদয়-নির্জন ॥

পার্বত্য জেলা রাঙামাটিতে নতুন সড়ক পরিবহন আইন কার্যকর করার লক্ষ্যে জনসচেতনতা বৃদ্ধিতে মোবাইল কোর্ট পরিচালনা করেছে রাঙামাটি জেলা প্রশাসন ও বিআরটিএ কর্তৃপক্ষ। বুধবার দুপুরে রাঙামাটি শহরের পৌরসভা সম্মুখে রাঙামাটি-চট্টগ্রাম সড়কে পরিচালিত মোবাইল কোর্টের অভিযানে মোটর সাইকেল, অটোরিক্সাসহ বিভিন্ন যানবাহনের প্রয়োজনীয় কাগজপত্র যাচাই-বাছাই করা হয়।

রাঙামাটি জেলা প্রশাসনের নির্বাহী ম্যাজিষ্ট্রেট সিরাজুল ইসলামের নেতৃত্বে পরিচালিত এই মোবাইল কোর্টেহেলমেট ব্যবহার না করা, লাইসেন্স আপডেট না থাকাসহ বিভিন্ন ধরনের অপরাধে আটটি যানবাহনকে নতুন মোটরযান আইনে অর্থ দন্ডে দন্ডিত করা হয়।

এসময় তিনি বলেন, আমরা সড়ককে নিরাপদ করতে এবং চালকদেরকে নতুন সড়ক পরিবহন আইন সম্পর্কে সম্যক ধারনা প্রদানের লক্ষ্যে সচেতনতামূলক মোবাইল কোর্ট পরিচালনা করছি। অধিকমাত্রায় জরিমানা করে চালকদেরকে হয়রানী করা মোবাইল কোর্টের উদ্দেশ্য নয় জানিয়ে নির্বাহী ম্যাজিষ্ট্রেট সিরাজুল ইসলাম বলেন, আমরা চাই চালক ভাইয়েরা নতুন আইন সম্পর্কে ভালোভাবে জেনেশুনে এবং আইন মানায় অভ্যস্ত হোক।

এই লক্ষ্যে যৎসামান্য অর্থ দন্ডের মাধ্যমে মোবাইল কোর্ট পরিচালনা করে ভবিষ্যতের জন্য সতর্ক করার জন্যে এধরনের অভিযান পরিচালনার সিদ্ধান্ত নিয়েছে রাঙামাটি জেলা প্রশাসন কর্তৃপক্ষ। তারই ধারাবাহিকতায় রাঙামাটির জেলা প্রশাসক একেএম মামুনুর রশিদের নির্দেশনায় রাঙামাটি শহরে মোবাইল কোর্ট পরিচালনা করা হচ্ছে। জেলা দূর্ঘটনারোধে এই ধরনের অভিযান অব্যাহত থাকবে বলেও জানিয়েছেন তিনি।

এদিকে প্রথমদিনের মোবাইল কোর্টে আটটি মামলায় ৪২০০ টাকা জরিমানা আদায় করা হয়েছে বলে জানিয়েছেন রাঙামাটি বিআরটিএ’র দায়িত্বপ্রাপ্ত ইন্সপেক্টর মোঃ শফিক উল ইসলাম। এসময় জেলা প্রশাসনের পেশকার নজরুল ইসলামসহ পুলিশ সদস্যরা উপস্থিত ছিলেন।