রামগড় উপজেলা পরিষদ মিলনায়তনে পেট্রােল বোমার আগুন ৩ স্থানে চকলেট বোমার বিস্ফোরন

Kagrachori Mepনিজস্ব প্রতিবেদক : জেলার সীমান্তবর্তী রামগড় উপজেলা মিলনায়তনে অগ্নিসংযোগ ও তিন স্থানে বিস্ফোরণ ঘটিয়েছে দুর্বৃত্তরা।

শনিবার রাত সাড়ে ৮টা থেকে ৯টার মধ্যে এ সব ঘটনা ঘটে। পুলিশের ধারণা, আতঙ্ক ছড়াতে দুর্বৃত্তরা ভারতীয় চকলেট বোমা বিস্ফোরণ ঘটায়। ঘটনার পর তাৎক্ষনিকভাবে শহরে প্রতিবাদ মিছিল ও সমাবেশ করেছে ক্ষমতাসীন দল আওয়ামী লীগ, যুবলীগ ও ছাত্রলীগ।

রামগড় সার্কেলের সহকারী পুলিশ সুপার ইউনুস আলী মিয়া বলেন, ‘ঘটনাস্থল থেকে প্রাপ্ত আলামত দেখে ভারতীয় চকলেট বোমা বলে প্রাথমিকভাবে ধারণা করা হচ্ছে।’

তিনি জানান, রাত সাড়ে ৮টার দিকে রামগড় বাজারে একটি, কাঠ ব্যবসায়ী সমিতির কার্যালয়ের সামনে একটি ও রামগড় সিনেমা হল সংলগ্ন বাজারে দুটি বিস্ফোরণ ঘটনায় দুর্বৃত্তরা।

এরপর রাত ৯টার দিকে রামগড় উপজেলা পরিষদ মিলনায়তনে পেট্রোলবোমা দিয়ে আগুন ধরিয়ে দেয়া হয়। এ সময় নিরাপত্তা কর্মীরা আগুন নিভিয়ে ফেলে।

ইউনুস আলী মিয়া আরও জানান, খবর পেয়ে তিনিসহ উপজেলা নির্বাহী কর্মকর্তা মো: ইকবাল হোসেন ও রামগড় থানার ভারপ্রাপ্ত কর্মকর্তা (ওসি) যুবায়েরুল হক ঘটনাস্থল পরিদর্শন করেন।

এ বিস্ফোরণ ও আগুনের ঘটনার প্রতিবাদে তাৎক্ষনিকভাবে শহরে বিক্ষোভ মিছিল বের করে আওয়ামী লীগ, যুবলীগ ও ছাত্রলীগ। মিছিলটি শহরের গুরুত্বপুর্ন সড়ক পদক্ষিণ করে রামগড় বাস স্টেশন চত্বরে প্রতিবাদ সমাবেশ করে।

রামগড় থানার ভারপ্রাপ্ত কর্মকর্তা (ওসি) যুবায়েরুল হক বলেন, আতঙ্ক সৃষ্টি করার জন্য দুর্বৃত্তরা এ ঘটনা ঘটিয়েছে। শহরে বিজিবি টহল দিচ্ছে। নিরাপত্তা ব্যবস্থা জোরদার করা হয়েছে।

Leave a Reply