হাটহাজারীতে সেনাবাহিনীর ফ্রি চিকিৎসা সেবা

॥ হাটহাজারী প্রতিনিধি ॥
সেনাবাহিনী দেশের দূর্যোগ মুহুর্তে জীবনের ঝুঁকি নিয়ে মানুষের জানমাল রক্ষার জন্য তাদের সর্বোত্তম সেবা প্রদান এবং সরকারের বিভিন্ন দফতরের সাথে তারা মানব কল্যানের জন্য নিরন্তর সহযোগীতা করে যাচ্ছে। সরকারের এ বাহিনী তাদের জনকল্যানকর কাজের একটি অন্যন্য দৃষ্টান্ত স্থাপন করেছে। রবিবার ৫ জানুয়ারী থেকে ১৬ জানুয়ারী পর্যন্ত হাটহাজারীতে অস্থায়ী ভাবে ৩০ বেডের আধুনিক সুযোগ সুবিধা সম্বলিত একটি বহুমাত্রিক স্বাস্থ্য সেবা ক্যাম্প তথা হাসপাতাল প্রতিষ্ঠা করেছেন।
বর্তমান সরকারের প্রধানমন্ত্রী ঘোষিত স্বাস্থ্য সেবা গ্রামের প্রত্যন্ত অঞ্চলের জনগণের দ্বোরগোড়ায় পৌছে দিতে এ ক্যাম্পের আয়োজন করা হয়। রবিবার হাটহাজারী পৌর সদর আলমপুর দুগ্ধ খামার এলাকায়  ভ্রাম্যমান হাসাপাতালের বর্হিবিভাগ সেবা কার্যক্রম উদ্ভোধন করা হয়েছে এবং বর্হিবিভাগ চিকিৎসা কেন্দ্রটি আদর্শগ্রাম এলাকায় স্থাপন করা হয়।

সেনা বাহিনীর ফ্রি চিকিৎসা সেবা কেন্দ্র চালুর সংবাদ পেয়ে চারদিক থেকে শত শত অসহায়,দুঃস্থ,মেহনতি,দরিদ্র চিকিৎসা বঞ্চিত রোগী সকাল থেকে বর্হিবিভাগ চিকিৎসা কেন্দ্রে জড়ো হতে থাকে। সুশৃঙ্খল এ বাহিনী সেবা গ্রহন করতে আসা রোগীদের বসার জন্য পুরুষ ও মহিলা আলাদা জায়গা নির্ধারন করেছে এবং পুরুষ মহিলা ২ লাইনে সুশৃঙ্খল ভাবে দাঁড়িয়ে চিকিৎসকদের কাছ থেকে সেবাও গ্রহন করছেন। এসময় সেনা বাহিনীর অভিজ্ঞ চিকিৎসক দল সেবা নিতে আসা রোগীদের আন্তরিকভাবে সেবা প্রদান করতে দেখা গেছে। চিকিৎসা শেষে রোগীদের প্রয়োজনীয় ঔষধ ও সরবরাহ করছেন সেনা বাহিনীর এ ক্যাম্প থেকে। বর্হিবিভাগ চিকিৎসা কেন্দ্রে চক্ষু,মেডিসিন সহ বিভিন্ন রোগের চিকিৎসা প্রদানের ব্যবস্থা করা হয়েছে। চক্ষু রোগীদের প্রাথমিক ভাবে চিকিৎসা প্রদান করে দুগ্ধ খামার এলাকায় প্রতিষ্ঠিত আধুনিক অস্থায়ী হাসপাতালে বিশেষজ্ঞ চক্ষু চিকিৎসক মেজর ডাক্তার তাসজিদার কাছে প্রেরন করছেন। ৩০ বেডের প্রতিষ্ঠিত হাসপাতালে বিভিন্ন পরীক্ষা নিরিক্ষা করে রোগ নির্নয় এর মাধ্যমে রোগীদের সঠিক চিকিৎসা ব্যবস্থা করা হচ্ছে। তাছাড়া যুদ্ধকালিন সময়ে আহত সেনা বাহিনীর সদস্যদের কে দ্রুত কিভাবে যুদ্ধ ক্ষেত্রে প্রতিষ্টিত হাসপাতালে নেয়া হবে তাও দেখানো হচ্ছে। চিকিৎসা ক্যাম্পে মাইনর সার্জারি ও এক্সরে ব্যবস্থা সহ শীতাতপ নিয়ন্ত্রিত বেড ও রাখা হয়েছে। বাংলাদেশ সেনা বাহিনীর ২৪ পদাতিক ডিভিশনের মেডিকেল কোর এর সৃহায়তায় ১৮ ফিল্ড এ্যাম্বুলেন্স ও সিএমএইচ চট্টগ্রাম এ ক্যাম্পের আয়োজন করেন। ক্যাম্পের বর্হিবিভাগ চিকিৎসা কার্যক্রমের উদ্ভোধন করেন চট্টগ্রাম সেনা নিবাসের ২৪ পদাতিক ডিভিশন এর চিকিৎসা পরিদপ্তরের সহাকারী পরিচালক কর্নেল এসএম হুমায়ন কবির(এমফিল,এমপিএইচ)। এ সময় উপস্থিত ছিলেন, চট্টগ্রাম সেনা নিবাসের ১৮ ফিল্ড এ্যাম্বুলেন্সের অধিনায়ক লে.কর্নেল ডাক্তার মোহাম্মদ সরফরাজ হায়দার। ভারপ্রাপ্ত উপ অধিনায়ক ক্যাপ্টেন ডাক্তার চৌধুরী ইমরান মাহমুদ। বর্হিবিভাগ ক্যাম্পে রোগীদের চিকিৎসা প্রদান করেন ক্যাপ্টেন ডাক্তার মোহাম্মদ নাসির উদ্দীন,ক্যাপ্টেন ডাক্তার মোহাম্মদ ফয়জুল হক,ক্যাপ্টেন ডাক্তার শারমিন আহমেদ ও ক্যাপ্টেন ডাক্তার জাকিয়া সুলতানা। এ ক্যাম্পে আগামী মঙ্গলবার ও বর্হিবিভাগ চিকিৎসা সেবা দেয়া হবে বলে জানান ভারপ্রাপ্ত উপ অধিনায়ক ক্যাপ্টেন ডাক্তার চৌধুরী.ইমরান মাহমুদ। সেনা বাহিনীর মহতি এ চিকিৎসা সেবা কার্যক্রমের ফলে হাটহাজারীর অনেক দুস্থ রোগী উপকৃত হবে।  রবিবার(১২ জানুয়ারী) বর্হিবিভাগ চিকিৎসা সেবা কেন্দ্রে প্রায় নয় শতাধিক  রোগীকে চিকিৎসা সেবা প্রদান করা হয়েছে বলে সংশ্লিষ্টরা গণমাধ্যমকে জানান।