কারোনা প্রতিরোধে স্প্রে মেশিন প্রদান ও হাম আক্রান্ত শিশুদের বিস্কুট পাঠাবে উন্নয়ন বোর্ড

॥ নিজস্ব প্রতিবেদক ॥

২৪মার্চ মঙ্গলবার বিকাল ৩.০০ টায় পার্বত্য চট্টগ্রাম উন্নয়ন বোর্ডের পক্ষ থেকে বোর্ডের প্রধান কার্যালয় রাঙ্গামাটিতে কারোনাভাইরাস সংক্রমন প্রতিরোধে স্প্রে মেশিন হস্তান্তর অনুষ্ঠান অনুষ্ঠিত হয়। স্প্রে মেশিন বিতরণ অনুষ্ঠানে প্রধান অতিথি হিসেবে উপস্থিত ছিলেন পার্বত্য চট্টগ্রামা উন্নয়ন বোর্ডের ভাইস চেয়ারম্যান আশীষ কুমার বড়–য়া (যুগ্মসচিব)।

মহামারি দুরারোগ্যব্যাধি করোনাভাইরাসের কারণে পুরো দেশ ও জাতি আজ সংকটাপন্ন। সদাশয় সরকারের দিক নির্দেশনা অনুযায়ী পার্বত্য চট্টগ্রাম উন্নয়ন বোর্ড পার্বত্য চট্টগ্রাম অঞ্চলের মানুষের কল্যাণে ও জনগণকে সচেতন করার জন্য করোনাভাইরাসের সংক্রমন প্রতিরোধের কর্মসূচি অংশ হিসেবে রাঙ্গামাটি পার্বত্য জেলা প্রশাসনকে ১০টি এবং রাঙ্গামাটি পৌরসভাকে ১০টিসহ মোট ২০টি স্প্রে মেশিন হস্তান্তর করা হয়। স্প্রে মেশিন বিতরণের সময় রাঙ্গামাটি পার্বত্য জেলার জেলা প্রশাসকের পক্ষে স্প্রে মেশিন গ্রহণ করেন  সহকারী কমিশনার ও নির্বাহী ম্যাজিস্ট্রেট আরিফুল ইসলাম এবং রাঙ্গামাটি পৌরসভা মেয়র এর পক্ষে সচিব সুমন চৌধুরী। এসময় পার্বত্য চট্টগ্রাম উন্নয়ন বোর্ডের ভাইস চেয়ারম্যান আশীষ কুমার বড়–য়া (যুগ্মসচিব) করোনাভাইরাস সংক্রমন প্রতিরোধে জাতি, ধর্ম, বর্ণ নির্বিশেষে সকলকে সম্মিলিতভাবে কাজ করার আহবান জানান।

তথ্যসূত্রে জানা যায় যে, রাঙ্গামাটি পার্বত্য জেলার বাঘাইছড়ি উপজেলাস্থ দুর্গম সাজেক ইউনিয়নের খাইসা পাড়া, অরুন পাড়া, লঙ্গটিয়ান পাড়া ও কমলাপুর পাড়ার হামের আক্রান্ত প্রায় ১৩০ জন শিশু অপুষ্টিজনিত সমস্যায় ভুগছে। পার্বত্য চট্টগ্রাম উন্নয়ন বোর্ড দীর্ঘ চার দশকের বেশী সময় ধরে পার্বত্য চট্টগ্রাম অঞ্চলের মানুষের উন্নয়নে বহুমুখি উন্নয়নমূলক কার্যক্রম বাস্তবায়ন করে আসছে। এ সমস্যা নিরসনের লক্ষ্যে ইতোমধ্যে পার্বত্য চট্টগ্রাম উন্নয়ন বোর্ড পার্বত্য চট্টগ্রাম অঞ্চলের টেকসই সামাজিক সেবা প্রদান প্রকল্পের অর্থায়নে বিশ্ব খাদ্য সংস্থার তত্ত্বাবধানে পরিচালিত বিস্কুট ফিডিং কার্যক্রমের বরাদ্দ থেকে ৪০০০ প্যাকেট উচ্চ ক্যালরীযুক্ত বিস্কুট উপদ্রত এলাকার শিশুদের মধ্যে বিতরণের জন্য বিশ্ব খাদ্য সংস্থাকে অনুরোধ জানানো হয়েছে।