২০ লাখ টাকার মাদকদ্রব্য ধ্বংস করলো রাঙামাটি মাদকদ্রব্য নিয়ন্ত্রণ অধিদপ্তর

॥ আলমগীর মানিক ॥

রাঙামাটিতে মাদকদ্রব্য নিয়ন্ত্রণ অধিদপ্তর প্রায় ২০লক্ষ টাকার মাদক দ্রব্য আলামত ধ্বংস করলো। ২০১৯-২০২০ অর্থবছরে রাঙামাটি পার্বত্য জেলা সদর ও জেলার বিভিন্ন উপজেলা হতে অভিযান চালিয়ে সরকার কর্তৃক নিষিদ্ধ ও অবৈধ মাদক দ্রব্য উদ্ধার করে মাদক দ্রব্য নিয়ন্ত্রণ অধিদপ্তর রাঙামাটি জেলা শাখা।

বুধবার বিকালে শহরের বিজয় স্মরণীস্থ মাদক দ্রব্য নিয়ন্ত্রণ কার্যালয়ের সামনে জেলা প্রশাসনের নির্বাহী ম্যাজিস্ট্রেট মো.মশিউর রহমানের উপস্থিতিতে প্রায় ২০লক্ষ টাকার মাদক দ্রব্য আলামত ধ্বংস করা হয়েছে। এসময় উপস্থিত ছিলেন অত্র কার্যালয়ের উপ-পরিদর্শক মো.জসিম উদ্দিন, উপ-সহকারি পরিদর্শক প্রভাত চন্দ্র মিস্ত্রিসহ কার্যালয়ের অন্যান্য কর্মকর্তাগণ এসময় উপস্থিত ছিলেন। ধ্বংস করা মাদক দ্রব্যগুলো হলো- দেশীয় চোলাই মদ ৩৭৮ লিটার,গাঁজা-৬০০ গ্রাম, বিদেশী মদ-১৮২ বোতল, বিহার ক্যান বিদেশী-২৪টি ও ইয়াবা-২০৬৪ পিচ।

রাঙামাটি জেলার মাদকদ্রব্য নিয়ন্ত্রণ অধিদপ্তরের সহকারি পরিচালক মো.আবদুল হামিদ বলেন, ২০১৯ সালের ৪ এপ্রিল রাঙামাটিতে যোগদানের পর হতে ২৫ মার্চ কর্মস্থল ত্যাগ পর্যন্ত জেলা প্রশাসক, গোয়েন্দা সংস্থা, সেনাবাহিনী ও পুলিশ সুপারের সার্বিক সহযোগিতায় পার্বত্য জেলা রাঙামাটিতে মাদক দ্রব্য অভিযানে ব্যাপক সফলতা অর্জন করতে পেরেছি। যা আমার একার পক্ষে সম্ভব হতো না। আর আমার সাথে ছিল আমার কার্যালয়ের সহকর্মীরা। যারা সর্বদা আমাকে সহায়তার হাতটুকু বাড়িয়ে দিতো। আমি কৃতজ্ঞ রাঙামাটি জেলা প্রশাসন, আইনশৃঙ্খলা বাহিনী, জনপ্রতিনিধি ও স্থানীয় সাংবাদিকদের কাছে। সবাই আমাকে অনেক কাছ থেকে সহযোগিতা করেছেন।

জেলা প্রশাসনের নির্বাহী ম্যাজিস্ট্রেট মো.মশিউর রহমান বলেন, আমার উপস্থিতিতে এসব মাদক দ্রব্য আলামত ধ্বংস করা হয়েছে। ধ্বংসকৃত আলামত জব্দের তালিকা দেখে দেখে তা ধ্বংস করা হয়েছে। প্রতিটি নাগরিকের দায়িত্ব মাদককে না বলা। মাদক ও চোরাচালানের বিরুদ্ধে সবাইকে স্বোচ্চার হওয়ারও আহবান জানিয়েছেন তিনি।