ব্রেকিং নিউজ

নিজ ওয়ার্ডের দূর্গম পাহাড়েও ত্রাণ পৌঁছে দিচ্ছেন পূর্ণিমা

॥ ইকবাল হোসেন ॥

মহামারী করোনা ভাইরাসের ফলে প্রায় ২ মাস যাবত চলছে অঘোষিত লকডাউন। এ পরিস্থিতিতে কর্মহীন হয়ে পড়া মানুষদের জন্য ত্রাণ সহায়তা অব্যাহত রেখেছে সরকার। রাঙামাটি পৌর এলাকায় জেলা প্রশাসকের মাধ্যমে পৌর এলাকার কর্মহীন মানুষদের মাঝে ত্রাণ বিতরণ করছেন পৌর কাউন্সিলররা। এদিকে রাঙামাাটি পৌরসভার প্যানেল মেয়র এবং ৪, ৫ ও ৬নং ওয়ার্ডের সংরক্ষিত মহিলা কাউন্সিলর সোমা বেগম পূর্ণিমা তার নির্বাচনী ওয়ার্ড সমূহের দূর্গম এলাকার কোন বাসিন্দাও যাতে সরকারের এই ত্রাণ সহায়তা বঞ্চিত নাহয় তাই রোজা রেখেও এক এলাকা থেকে অন্য এলাকায় নিয়মিত ছুটে চলেছেন তিনি।

শুক্রবার সকালে আসামবস্তির এলাকায় দেখা যায় এলাকার সমন্বয় কমিটির পাশাপাশি সকল এলাকাবাসীর খোঁজ খবর নিচ্ছেন মহিলা কাউন্সিলর সোমা বেগম পূর্ণিমা। এসময় প্রতিবেদকের সাথে আলাপচারিতায় জানা যায় তিনি তার ওয়ার্ড সমূহের সকল এলাকায় সমন্বয় কমিটির মাধ্যমে ত্রাণ কার্ড বিতরণের পাশাপাশি নিজে সকল এলাকায় ঘুরে ঘুরে কেউ ত্রাণ বঞ্চিত হয়েছে কিনা তার খোঁজখবর নিচ্ছেন এবং প্রয়োজন মতো সাহায্যের ব্যবস্থা করছেন।

করোনা পরিস্থিতি মোকাবেলায় সোমা বেগম পূর্ণিমা নির্বাচনী এলাকার ত্রাণ বিতরণ বিষয়ে তিনি জানান, এই করোনা পরিস্থিতিতে আমার হাতে যেসব কার্ড এসেছে তা আমি ৪, ৫ ও ৬নং ওয়ার্ডের কাউন্সিলরদের সাথে সমন্বয় করে কেউ যাতে ত্রাণ বঞ্চিত নাহয় সেজন্য যথাযথভাবে পৌঁছে দেয়ার ব্যবস্থা করেছি। এছাড়াও তিনি বলেন আমার নির্বাচনী এলাকায় দূর্গম পাহাড়ে বসবাসকারী কেউ যাতে সরকারি এই ত্রাণ সহায়তা থেকে বঞ্চিত নাহয় তার লক্ষে আমি নিয়মিত প্রত্যেকটি এলাকায় যাচ্ছি ও সবার খোঁজখবর নিচ্ছি। এক্ষেত্রে কেউ ত্রাণ বঞ্চিত হলে আমি তাৎক্ষণিক ব্যবস্থা গ্রহণ করছি।

তিনি পৌর এলাকার সকলকে নিজ নিজ বাসায় অবস্থান করার অনুরোধ করেন। আর বিশেষ প্রয়োজনে ঘর থেকে বাহির হলে সামাজিক দূরত্ব বজায় রেখে স্বাস্থ্যবিধি মেনে কাজ সেরে যতদ্রুত সম্ভব বাসায় ফিরে আসারও অনুরোধ করেন।